বুক রিভিউ: বাংলাদেশে মৌলবাদের অর্থনীতি

একাত্তরে পাকিস্তানের পক্ষে কাজ করেছিল এমন বাঙালিদের আমরা দু'ভাগে ভাগ করতে পারি।

১. মৌলবাদী, যারা মুসলিম রাষ্ট্র হিসেবে পাকিস্তানের অস্তিত্ব টিকিয়ে রাখতে কাজ করেছিল।
২. সুবিধাবাদী, এরা মূলত: পাকিস্তানের সুবিধাভোগী শ্রেণী।

এই দুই শ্রেণীই পাকিস্তান টিকিয়ে রাখার জন্য একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধ সংঘটিত করেছিল, তা ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা করে করেছিল ও বাংলাদেশ রাষ্ট্রের স্বাধীনতার বিপক্ষে কাজ করেছিল; সংখ্যার দিক থেকে মৌলবাদীরাই ছিল সংখ্যাগরিষ্ট।

স্বাধীনতা পরে প্রথম চার বছরে এদের বিচারের কার্যক্রম চলছিল এবং সামাজিক ও রাষ্ট্রীয়ভাবে এরা বয়কটের সন্মুখীন ছিল, এদের প্রায় সবাই ছিল আত্মগোপনে  অথবা বিদেশে।

কিন্তু পঁচাত্তরে বঙ্গবন্ধুর নির্মম হত্যাকান্ডের মধ্য দিয়ে একাত্তরের পরাজিত শক্তি তথা, মৌলবাদীদের উত্থান ঘটে। বিএনপি-জামাত-জাতীয় র্পাটি সহ অগণতান্ত্রিক সরকারগুলো দীর্ঘ ত্রিশ বছর ধরে মৌলবাদীদের রাষ্ট্রীয়ভাবে স্পন্সর করেছে, আওয়ামীলীগ দলীয়ভাবে ধর্মনিরপেক্ষ দল হলেও এর কিছু সদস্যও জঙ্গিবাদের প্রতি সহানুভূতিশীল।

যার ফলস্বরূপ আমরা দেখছি বাংলাদেশে জামাত, শিবির, জামাতুল মুজাহেদীন, হরতাতুল জিহাদ, হেফাজত-ই-ইসলাম, হিজবুত তাহরীর, আনসারুল্লাহ বাংলা টিম, আল কায়েদা ও ইসলামিক স্টেট সহ বিভিন্ন জঙ্গি সংগঠনের ধ্বংসাত্মক কার্যক্রম।

প্রশাসন, অর্থনীতি, শিক্ষাব্যবস্থা, রাজনীতি ও সমাজ তথা বাংলাদেশের সর্বত্র মৌলবাদীরা ছড়িয়ে পড়েছে। আর এটা ওরা করতে পেরেছে তাদের আর্থিক সক্ষমতার কারণে। মৌলবাদীদের কব্জায় চলে গেছে বাংলাদেশের অর্থনীতির একটি বড় অংশ।

আর এই বিষয় (জঙ্গিদের বাংলাদেশের অর্থনীতিতে প্রভাব বিস্তার) নিয়ে আলোচনা করেছেন ড. আবুল বারকাত তাঁর 'বাংলাদেশে মৌলবাদের অর্থনীতি' পুস্তিকায়।
বাংলাদেশে মৌলবাদীদের হালচাল বুঝতে এই পুস্তিকা পাঠ করা আবশ্যিক।
___________________________________

বাংলাদেশে মৌলবাদের অর্থনীতি
ড. আবুল বারকাত
সমাজ, অর্থনীতি ও রাষ্ট্র

মুক্তিযুদ্ধ ই-আর্কাইভ হতে বইটি পড়তে পারেন; লিংক:
http://www.liberationwarbangladesh.org/2015/07/blog-post_52.html

Comments

Popular posts from this blog

মুক্তিযুদ্ধে নারী নির্যাতনে পাকিস্তানি মানস

অপারেশন সার্চলাইটঃ একটি পরিকল্পিত গণহত্যার সূচনা

বঙ্গবন্ধু হত্যাকান্ডে চীনের ভূমিকা ও ভাসানীর দায়